থাইল্যান্ড কিংবা বিশ্বের অনেক দেশেই পর্যটকদের ভ্রমণ আনন্দ উপভোগের জন্য ট্যুরিস্ট ক্যারাভ্যান চালু আছে। কিন্তু এবারই প্রথম বিশ্বের অন্যান্য দেশের মত বাংলাদেশেও টুরিস্ট ক্যারাভ্যান চালু হয়েছে। অ্যাকুয়াহলিক ট্যুরিস্ট ক্যারাভ্যান (Aquaholic Tourist Caravan) নামক এই ক্যারাভ্যান সার্ভিসটি কক্সবাজার মেরিন ড্রাইভ রোড ধরে চলাচল করছে।

গত ২৬/০২/২০২০ইং তারিখ উদ্ভোধন করা হলেও ২৮/০২/২০২০ইং তারিখ থেকে পর্যটকেরা সপ্তাহে সাতদিন এই ক্যারাভ্যানের সেবা গ্রহণ করছেন। ক্যারাভ্যানটি কক্সবাজারের কলাতলী থেকে যাত্রা শুরু করে টেকনাফ জিরো পয়েন্ট হয়ে আবার কলাতলীতে ফিরে আসছে।

ক্যারাভ্যানের যাত্রা পথে যেসকল দর্শনীয় স্থান পড়বে-
হিমছড়ি> পাতুয়ারটেক> শামলাপুর হিল ভিউ বিচ> টেকনাফ বীচ> অ্যাক্যুয়া জোন ১> অ্যাক্যুয়া জোন ২> সাব্রাং জিরো পয়েন্ট ইত্যাদি।

কক্সবাজারের এই ট্যুরিস্ট ক্যারাভ্যানের জনপ্রতি ভাড়া ধরা হয়েছে ২০০০ টাকা। ভাড়ার সাথে থাকবে ক্যারাভ্যানে এন্ট্রি টিকেট, সকালের নাস্তা, দুপুরের খাবার, বিকেলের স্ন্যাক্স এবং সাইটসিন ভ্রমণ। এছাড়া অন্যান্য সুযোগ সুবিধার মধ্যে আছে গাইড, কিচেন, ওয়াইফাই, লাইব্রেরী, সিসি ক্যামেরা এবং ওয়াশরুমের ব্যবস্থা।

কক্সবাজার ভ্রমণকারী পর্যটকগণ অ্যাকুয়াহলিক ট্যুরিস্ট ক্যারাভ্যান অফিসে সরাসরি উপস্থিত হয়ে কিংবা তাদের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটের মাধ্যমে বুকিং দিয়ে প্রতিদিন সর্বোচ্চ ৪২ জন সকাল ৯টা হতে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত দিনব্যাপী এই ক্যারাভ্যান সেবা উপভোগ করতে পারবেন।

বুকিং ও বিস্তারিত তথ্যের জন্য যোগাযোগ
1st Floor, ওয়ার্ল্ড বীচ রিসোর্ট, ডলফিন মোড়, কলাতলী, কক্সবাজার।
মোবাইল: 01787-273727
ফেইসবুক: www.facebook.com/aquaholic.caravan
ওয়েবসাইট: www.aquaholic.com.bd

উল্লেখ, বর্তমানে রিজু খাল সেতুর ধারণক্ষমতা কম থাকায় কলাতলি থেকে কোস্টার ও খোলা জিপে সেতু পার করে পর্যটকদের ক্যারাভানে নেয়া হচ্ছে। মেরিন ড্রাইভ ভ্রমণ শেষে আবার পর্যটকদের কলাতলিতে পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে।

শেয়ার করুন সবার সাথে

ভ্রমণ গাইড টিম সব সময় চেষ্টা করছে আপনাদের কাছে হালনাগাদ তথ্য উপস্থাপন করতে। যদি কোন তথ্যগত ভুল কিংবা স্থান সম্পর্কে আপনার কোন পরামর্শ থাকে মন্তব্যের ঘরে জানান অথবা আমাদের সাথে যোগাযোগ পাতায় যোগাযোগ করুন।
দৃষ্টি আকর্ষণ : যে কোন পর্যটন স্থান আমাদের সম্পদ, আমাদের দেশের সম্পদ। এইসব স্থানের প্রাকৃতিক কিংবা সৌন্দর্য্যের জন্যে ক্ষতিকর এমন কিছু করা থেকে বিরত থাকুন, অন্যদেরকেও উৎসাহিত করুন। দেশ আমাদের, দেশের সকল কিছুর প্রতি যত্নবান হবার দায়িত্বও আমাদের।
সতর্কতাঃ হোটেল, রিসোর্ট, যানবাহন ভাড়া ও অন্যান্য খরচ সময়ের সাথে পরিবর্তন হয় তাই ভ্রমণ গাইডে প্রকাশিত তথ্য বর্তমানের সাথে মিল না থাকতে পারে। তাই অনুগ্রহ করে আপনি কোথায় ভ্রমণে যাওয়ার আগে বর্তমান ভাড়া ও খরচের তথ্য জেনে পরিকল্পনা করবেন। এছাড়া আপনাদের সুবিধার জন্যে বিভিন্ন মাধ্যম থেকে হোটেল, রিসোর্ট, যানবাহন ও নানা রকম যোগাযোগ এর মোবাইল নাম্বার দেওয়া হয়। এসব নাম্বারে কোনরূপ আর্থিক লেনদেনের আগে যাচাই করার অনুরোধ করা হলো। কোন আর্থিক ক্ষতি বা কোন প্রকার সমস্যা হলে তার জন্যে ভ্রমণ গাইড দায়ী থাকবে না।