এডভেঞ্চার প্রেমীদের জন্য রাজধানী ঢাকা থেকে মাত্র ৩৭ কিলোমিটার দূরে ২০১৩ সালে গাজীপুরের রাজেন্দ্রপুরে দেশের প্রথম আউট ডোর একটিভিটি ক্যাম্প দ্যা বেস ক্যাম্প বাংলাদেশ (The Base Camp Bangladesh) গড়ে তোলা হয়েছে। গতানুতিক রিসোর্ট থেকে ভিন্ন ধাঁচের এই ক্যাম্পে মনোরম প্রাকৃতিক পরিবেশ উপভোগ করার পাশাপাশি বিভিন্ন এডভেঞ্চারমূলক কর্মকাণ্ডে অংশ গ্রহনের সুযোগ রয়েছে।

বেস ক্যাম্পে প্রবেশের শুরুতেই চোখে পড়বে বিশাল পার্কিং এরিয়া এবং বিস্তৃত সবুজ মাঠ। এই মাঠেই অভিজ্ঞ ইন্সট্রাক্টরের নির্দেশনায় “অন ট্রি” ও “অন গাউন্ড” চ্যালেঞ্জের মতো বিভিন্ন এডভেঞ্চারমূলক কর্মকাণ্ডের ব্যবস্থা করা হয়ে থাকে। বেস ক্যাম্পের অন গ্রাউন্ড এক্টিভিটির মধ্যে রয়েছে সাইক্লিং, মাঙ্কি পাস, টায়ার পাস, টায়ার স্যান্ডউইচ, জিপ লাইন, রোপ ট্রেঞ্চ, রোপ ওয়াক, বোটিং, ফুটবল, আর্চারি, ক্রিকেট ও ব্যাডমিন্টন।

এছাড়াও দ্যা বেস ক্যাম্প বাংলাদেশ আরো আছে সুইমিংপুল, ট্রি হাউজ, বাচ্চাদের জন্য স্পেশাল জোন, ট্র্যাকিং এবং ফিশিংয়ের ব্যবস্থা। আর রাতের বেলা তাবুতে থাকার পাশাপাশি এখানে ক্যাম্প ফায়ার এবং বার বি কিউ পার্টির আয়োজন করা যায়। সবকিছু মিলিয়ে পিকনিক কিংবা তাবুতে থাকার ভিন্ন ধর্মী অভিজ্ঞতা নিতে এডভেঞ্চার প্রেমীদের কাছে জনপ্রিয় হয়ে উঠছে দ্যা বেস ক্যাম্প, বাংলাদেশ।

থাকার ব্যবস্থা ও খরচ

সেপ্টেম্বর থেকে মার্চ মাস পর্যন্ত দ্যা বেস ক্যাম্প বাংলাদেশে তাবুতে থাকার ব্যবস্থা করা হয়ে থাকে। বিভিন্ন এক্টিভিটির নির্ভর তাবুতে থাকার খরচ করে। আর তাবুর প্যাকেজগুলো মূলত স্কুল, পরিবার ও কর্পোরেট ভিত্তিক হয়ে থাকে। ২০ জনের টিমের প্রতি দুইজনের তাবুতে থাকতে ভাড়া ২,৫০০ টাকা। এছাড়া এসি ও এটাচ বাথরুম সহ সিঙ্গেল রুম ভাড়া ২,৫০০ টাকা ও ডাবল রুম ভাড়া ৩,৫০০ টাকা। বড় লিভিং রুম ও লাউঞ্জ সহ ডুপ্লেক্স বাংলোর ভাড়া ১২,০০০ টাকা।

খাওয়া দাওয়া

দ্যা বেস ক্যাম্পস বাংলাদেশ সাধারনত দিনে ও রাতে বুফের ব্যবস্থা থাকে। তবে বুকিং দিয়ে রাখলে নিজেদের পছন্দ অনুযায়ী খাবারের ব্যবস্থা করা যায়।

যোগাযোগ

দ্যা বেস ক্যাম্প বাংলাদেশ
গজারিয়াপাড়া, রাজেন্দ্রপুর, গাজীপুর
মোবাইল: ০১৯৫২-৭৭৭৯৯৯, ০১৯৪২-৭৭৭৯৯৯, ০১৯৯৫-৩৩৩১১১, ০১৮৮০-০৮৫৫৫৫
ই-মেইল: info@thebasecamp.com
ওয়েবসাইট: thebasecampbd.com
ফেইসবুক: www.fb.com/thebasecamp

কিভাবে যাবেন

ঢাকা-ময়মনসিংহ হাইওয়ের পাশে দ্যা বেস ক্যাম্প বাংলাদেশের অবস্থান। ঢাকা থেকে নিজস্ব পরিবহন অথবা ঢাকা-ময়মনসিংহ রুটে চলাচলকারী যেকোন বাসে চড়ে গাজীপুর চৌরাস্তা সংলগ্ন বেস ক্যাম্পে যাওয়া যায়।

বেস ক্যাম্পের কিছু নিয়মাবলী ও সতর্কতা

  • বাইরে থেকে খাবার নিয়ে ক্যাম্পের ভেতরে প্রবেশ করা যাবে না।
  • স্মোকিং জোন ছাড়া স্নোকিং করা নিষেধ।
  • কোন ধরনের ড্রাগস, হার্ড ড্রিঙ্কস ও অস্ত্র সাথে রাখা যাবে না।
  • হাইট ফোবিয়া, অ্যাজমা বা হৃদরোগ থাকলে কোন ধরনের এক্টিভিটিতে অংশগ্রহণের পূর্বেই অসুস্থতা সম্পর্কে ইন্সট্রাক্টরকে জানিয়ে রাখতে হবে।

অন্যান্য দর্শনীয় স্থান

বেস ক্যাম্প থেকে কাছেই রয়েছে ভাওয়াল ন্যাশনাল পার্ক। এছাড়াও আছে অত্যাধুনিক মানের বেশকিছু রিসোর্ট, নুহাশ পল্লী ও ভাওয়াল রাজবাড়ির মতো আকর্ষণীয় স্থান।

ফিচার ইমেজ: Base Camp Bangladesh

ম্যাপে দ্যা বেস ক্যাম্প বাংলাদেশ

শেয়ার করুন সবার সাথে

ভ্রমণ গাইড টিম সব সময় চেষ্টা করছে আপনাদের কাছে হালনাগাদ তথ্য উপস্থাপন করতে। যদি কোন তথ্যগত ভুল কিংবা স্থান সম্পর্কে আপনার কোন পরামর্শ থাকে মন্তব্যের ঘরে জানান অথবা আমাদের সাথে যোগাযোগ পাতায় যোগাযোগ করুন।
দৃষ্টি আকর্ষণ : যে কোন পর্যটন স্থান আমাদের সম্পদ, আমাদের দেশের সম্পদ। এইসব স্থানের প্রাকৃতিক কিংবা সৌন্দর্য্যের জন্যে ক্ষতিকর এমন কিছু করা থেকে বিরত থাকুন, অন্যদেরকেও উৎসাহিত করুন। দেশ আমাদের, দেশের সকল কিছুর প্রতি যত্নবান হবার দায়িত্বও আমাদের।
সতর্কতাঃ হোটেল, রিসোর্ট, যানবাহন ভাড়া ও অন্যান্য খরচ সময়ের সাথে পরিবর্তন হয় তাই ভ্রমণ গাইডে প্রকাশিত তথ্য বর্তমানের সাথে মিল না থাকতে পারে। তাই অনুগ্রহ করে আপনি কোথায় ভ্রমণে যাওয়ার আগে বর্তমান ভাড়া ও খরচের তথ্য জেনে পরিকল্পনা করবেন। এছাড়া আপনাদের সুবিধার জন্যে বিভিন্ন মাধ্যম থেকে হোটেল, রিসোর্ট, যানবাহন ও নানা রকম যোগাযোগ এর মোবাইল নাম্বার দেওয়া হয়। এসব নাম্বারে কোনরূপ আর্থিক লেনদেনের আগে যাচাই করার অনুরোধ করা হলো। কোন আর্থিক ক্ষতি বা কোন প্রকার সমস্যা হলে তার জন্যে ভ্রমণ গাইড দায়ী থাকবে না।