নোয়াখালী জেলার ধর্মপুর গ্রামে প্রায় ২৫ একর জায়গাজুড়ে নোয়াখালী ড্রিম ওয়ার্ল্ড পার্ক (Noakhali Dream World Park) গড়ে তোলা করা হয়েছে। সম্পূর্ণ বেসরকারী উদ্যোগে প্রতিষ্ঠিত এই পার্কে সকল বয়সী দর্শনার্থীদের বিনোদনের ব্যবস্থা রয়েছে। নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের কাছে অবস্থিত নোয়াখালী ড্রিম ওয়ার্ল্ড পার্ক অত্র জেলার সর্ববৃহৎ বিনোদন কেন্দ্র হিসাবে সর্বমহলে অত্যন্ত সুপরিচিত।

নোয়াখালী ড্রিম ওয়ার্ল্ড পার্কের আকর্ষণীয় রাইডের মধ্যে রয়েছে সুইং চেয়ার, প্যাডেল বোট, হেলিকপ্টার, সোয়ান বোট, মেরি গো রাউন্ড, কিডস ট্রেন, ফ্যামেলি ট্রেন, ফেরিস হুইল, বাম্পার কার এবং নাগরদৌলা উল্লেখযোগ্য। এছাড়া আরও আছে ঝর্ণা, সবুজে ঢাকা পাহাড়, লেক, সুইমিংপুল, কার পার্কিং, পিকনিক এবং নিচ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থা।

নোয়াখালী ড্রিম ওয়ার্ল্ড পার্ক সপ্তাহের সাত দিন সকাল ৯ টা ৩০ মিনিট হতে সন্ধ্যা ৬ টা ৩০ মিনিট পর্যন্ত দর্শনার্থীদের জন্য উন্মুক্ত থাকে। নোয়াখালী ড্রিম ওয়ার্ল্ড পার্কে প্রবেশ টিকেটের মূল্য জনপ্রতি ১৫০ টাকা। এছাড়া পার্কে ৩ ধরণের পিকনিক প্যাকেজ এবং ১ টি ফ্যামিলি প্যাকেজ চালু রয়েছে।

যোগাযোগ
নোয়াখালী ড্রিম ওয়ার্ল্ড প্রাঃ লিঃ
ধর্মপুর, নোয়াখালী।
মোবাইল: 01849-653660, 01825-295829, 01813-876829

কিভাবে যাবেন

নোয়াখালি (Noakhali) জেলা সদরের মাত্র ৭ কিলোমিটার দূরে নোয়াখালী ড্রিম ওয়ার্ল্ড পার্কটির অবস্থান। বাংলাদেশের যেকোন প্রান্ত হতে নোয়াখালী সদরে এসে অটোরিক্সা বা সিএনজির মত লোকাল যানবাহনে চড়ে সহজেই ড্রিম ওয়ার্ল্ড পার্কে যেতে পারবেন।

বাসে ঢাকা থেকে নোয়াখালী : ঢাকা সায়দাবাদ বাস টার্মিনাল থেকে একুশে এক্সপ্রেস, মুনলাইন এন্টারপ্রাইজ, হিমাচল এক্সপ্রেসের বাসে নোয়াখালী যাওয়া যায়। ধানমন্ডি জিগাতলা কাউন্টার থেকে একুশে পরিবহনের বাস নোয়াখালীর জন্য রাত ১০ টা ২০ মিনিটে ছেড়ে যায়। এসব বাসের নন-এসি এবং এসি কোচের ভাড়া ৫০০ থেকে ১০০০ টাকা পর্যন্ত।

ট্রেনে করে ঢাকা থেকে নোয়াখালী : ঢাকার কমলাপুর থেকে বৃহস্পতিবার ছাড়া সপ্তাহের অন্য ৬ দিন বিকাল ৪ টা ২০ মিনিটে উপকুল এক্সপ্রেস নামক আন্তঃনগর ট্রেন নোয়াখালীর উদ্দেশ্যে যাত্রা করে এবং নোয়াখালী পৌঁছাতে প্রায় ৬ ঘন্টা সময় লাগে। ট্রেনের টিকেটের শ্রেনী ভেদে ভাড়া ২৩০ থেকে ৫০০ টাকা পর্যন্ত।

কোথায় থাকবেন

নোয়াখালীতে থাকার জন্য বিভিন্ন মানের বেশকিছু আবাসিক হোটেল রয়েছে। স্বল্প খরচে রাত্রি যাপনের পাশাপাশি প্রায় প্রতিটি আবাসিক হোটেলের সাথে খাবারের রেস্টুরেন্ট আছে। উল্লেখ্যযোগ্য আবাসিক হোটেলের মধ্যে আছে – পুবালি হোটেল (0321-61257), সার্কিট হাউস, রয়েল হোটেল, হোটেল আল মোরশেদ (0321-62173), টাউন হল, হোটেল রাফসান (0321-61395), হোটেল লিটন এবং নোয়াখালী গেষ্ট হাউস।

ফিচার ইমেজ : ফারুক

ম্যাপে নোয়াখালী ড্রিম ওয়ার্ল্ড পার্ক

শেয়ার করুন সবার সাথে

ভ্রমণ গাইড টিম সব সময় চেষ্টা করছে আপনাদের কাছে হালনাগাদ তথ্য উপস্থাপন করতে। যদি কোন তথ্যগত ভুল কিংবা স্থান সম্পর্কে আপনার কোন পরামর্শ থাকে মন্তব্যের ঘরে জানান অথবা আমাদের সাথে যোগাযোগ পাতায় যোগাযোগ করুন।
দৃষ্টি আকর্ষণ : যে কোন পর্যটন স্থান আমাদের সম্পদ, আমাদের দেশের সম্পদ। এইসব স্থানের প্রাকৃতিক কিংবা সৌন্দর্য্যের জন্যে ক্ষতিকর এমন কিছু করা থেকে বিরত থাকুন, অন্যদেরকেও উৎসাহিত করুন। দেশ আমাদের, দেশের সকল কিছুর প্রতি যত্নবান হবার দায়িত্বও আমাদের।
সতর্কতাঃ হোটেল, রিসোর্ট, যানবাহন ভাড়া ও অন্যান্য খরচ সময়ের সাথে পরিবর্তন হয় তাই ভ্রমণ গাইডে প্রকাশিত তথ্য বর্তমানের সাথে মিল না থাকতে পারে। তাই অনুগ্রহ করে আপনি কোথায় ভ্রমণে যাওয়ার আগে বর্তমান ভাড়া ও খরচের তথ্য জেনে পরিকল্পনা করবেন। এছাড়া আপনাদের সুবিধার জন্যে বিভিন্ন মাধ্যম থেকে হোটেল, রিসোর্ট, যানবাহন ও নানা রকম যোগাযোগ এর মোবাইল নাম্বার দেওয়া হয়। এসব নাম্বারে কোনরূপ আর্থিক লেনদেনের আগে যাচাই করার অনুরোধ করা হলো। কোন আর্থিক ক্ষতি বা কোন প্রকার সমস্যা হলে তার জন্যে ভ্রমণ গাইড দায়ী থাকবে না।