অ্যাডভেঞ্চার হোক কিংবা অবকাশ যাপন বান্দরবান জেলা পর্যটকদের কাছে আপন রূপের মহিমায় ব্যাপক জনপ্রিয় একটি ভ্রমণ স্থান। অপার প্রকৃতির হাতছানি ছাড়াও বান্দরবানে বসবাসকৃত ১১টি ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠির আচার-আচরন, সংষ্কৃতি এবং বিভিন্ন বৈচিত্র্যময় উৎসব পর্যটকদের পাহাড়ি কন্যা বান্দরবানে টেনে নিয়ে যায়। প্রকৃতির রঙে রাঙা বান্দরবান শহর থেকে মাত্র ৩ কিলোমিটার দূরে নয়নাভিরাম সবুজের কোলে অবস্থিত মিলনছড়ি (Milonchori) তেমনি একটি জনপ্রিয় ভ্রমণ স্থান। পাহাড়ি রাস্তা, দিগন্তজোড়া সবুজ আর সাঙ্গু নদীর মোহনীয় সৌন্দর্য যেন কল্পনায় আঁকা এক নান্দ্যনিক তৈলচিত্র।

কিভাবে যাবেন

যদি বান্দরবানের শৈলপ্রপাত, নীলগিরি অথবা চিম্বুক পাহাড় আপনার ভ্রমণ তালিকায় থাকে তবে মিলনছড়ি দেখার জন্য আলাদা ভাবে ভাবনার প্রয়োজন নেই। শৈলপ্রপাত, নীলগিরি ও চিম্বুক পাহাড় যাওয়ার পথে সাময়িক বিরতি দিয়ে উপভোগ করতে পারবেন মিলনছড়ির সৌন্দর্য।

ঢাকা থেকে সরাসরি বাসে বান্দরবান যাওয়া যায়। ঢাকার বিভিন্ন জায়গা থেকে শ্যামলি, সৌদিয়া, এস. আলম, ইউনিক, সেন্টমার্টিন পরিবহন ও হানিফ ইত্যাদি পরিবহনের বাস বান্দারবানের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়। জনপ্রতি এসব বাসের ভাড়া যথাক্রমে নন এসি ৮০০-৯০০ টাকা ও এসি ১২০০-১৮০০ টাকা। রাত ৯-১০টায় রওনা দিলে সকাল ৭টার মধ্যে পৌঁছে যাবেন বান্দরবান। এছাড়া ট্রেন বা এয়ারে ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম গিয়ে সেখান থেকে বান্দরবান যেতে পারবেন।

চট্টগ্রামের বদ্দারহাট থেকে পূবালী ও পূর্বানী নামের দুটি বাস বান্দারবানের উদ্দেশ্যে যাত্রা করে। এ দুটি বাসে জনপ্রতি ২২০ টাকা ভাড়া লাগে।

বান্দরবান জেলা শহরের রুমা বাস স্ট্যান্ড হতে স্পেশাল বাস সার্ভিস কিংবা চাঁদের গাড়ি ভাড়া করে শৈলপ্রপাত, নীলগিরি কিংবা চিম্বুক পাহাড় যাওয়ার পথে মিলনছড়ি দেখতে পারবেন।

কোথায় থাকবেন

মিলনছড়িতে হিল সাইড রিসোর্টে (01556-539022, 01730-045083) রাতে থাকতে পারবেন। এছাড়া বান্দরবান জেলা শহরে বিভিন্ন মানের বেশকিছু আবাসিক হোটেল ও রিসোর্ট রয়েছে। এসব হোটেল ও রিসোর্টে সময়ানুপাতে ৬০০ থেকে ৩ হাজার টাকায় রাতে থাকতে পারবেন। বান্দরবানের সকল হোটেল ও রিসোর্টের তথ্য জানতে এখানে ক্লিক করুন

ফিচার ইমেজ: সামিউল আলম

ভ্রমণ সংক্রান্ত যে কোন তথ্য ও আপডেট জানতে ফলো করুন আমাদের ফেসবুক পেইজ এবং জয়েন করুন আমাদের ফেসবুক গ্রুপে

ম্যাপে মিলনছড়ি

শেয়ার করুন সবার সাথে

ভ্রমণ গাইড টিম সব সময় চেষ্টা করছে আপনাদের কাছে হালনাগাদ তথ্য উপস্থাপন করতে। যদি কোন তথ্যগত ভুল কিংবা স্থান সম্পর্কে আপনার কোন পরামর্শ থাকে মন্তব্যের ঘরে জানান অথবা আমাদের সাথে যোগাযোগ পাতায় যোগাযোগ করুন।
দৃষ্টি আকর্ষণ : যে কোন পর্যটন স্থান আমাদের সম্পদ, আমাদের দেশের সম্পদ। এইসব স্থানের প্রাকৃতিক কিংবা সৌন্দর্য্যের জন্যে ক্ষতিকর এমন কিছু করা থেকে বিরত থাকুন, অন্যদেরকেও উৎসাহিত করুন। দেশ আমাদের, দেশের সকল কিছুর প্রতি যত্নবান হবার দায়িত্বও আমাদের।
সতর্কতাঃ হোটেল, রিসোর্ট, যানবাহন ভাড়া ও অন্যান্য খরচ সময়ের সাথে পরিবর্তন হয় তাই ভ্রমণ গাইডে প্রকাশিত তথ্য বর্তমানের সাথে মিল না থাকতে পারে। তাই অনুগ্রহ করে আপনি কোথায় ভ্রমণে যাওয়ার আগে বর্তমান ভাড়া ও খরচের তথ্য জেনে পরিকল্পনা করবেন। এছাড়া আপনাদের সুবিধার জন্যে বিভিন্ন মাধ্যম থেকে হোটেল, রিসোর্ট, যানবাহন ও নানা রকম যোগাযোগ এর মোবাইল নাম্বার দেওয়া হয়। এসব নাম্বারে কোনরূপ আর্থিক লেনদেনের আগে যাচাই করার অনুরোধ করা হলো। কোন আর্থিক ক্ষতি বা কোন প্রকার সমস্যা হলে তার জন্যে ভ্রমণ গাইড দায়ী থাকবে না।