ঢাকা ব্যতীত বাংলাদেশের দ্বিতীয় গুরুত্বপূর্ণ মহানগরীর নাম চট্টগ্রাম (Chittagong)। চট্টগ্রামকে বলা হয় বাংলাদেশের বাণিজ্যিক রাজধানী। তাই প্রতিদিন বিভিন্ন প্রয়োজনে অসংখ্য মানুষ ঢাকা হতে চট্টগ্রামের উদ্দেশ্যে যাত্রা করে। ফলে ঢাকা-চট্টগ্রাম রুট বাংলাদেশের অন্যতম ব্যস্ত একটি রুটে পরিণত হয়েছে। বাণিজ্য ও পর্যটনে সমৃদ্ধ চট্টগ্রাম পাহাড়, নদী ও সাগর ঘেরা এক নৈসর্গিক সৌন্দর্যের আধার।

রাজধানী ঢাকা (Dhaka) হতে বাস, ট্রেন এবং বিমানে চড়ে চট্টগ্রাম যাওয়া যায়। সড়ক পথে ঢাকা হতে চট্টগ্রামের দূরত্ব ২৬৫ কিলোমিটার আর রেলপথে দূরত্ব ৩৪৬ কিলোমিটার।

ঢাকা থেকে বাসে চট্টগ্রাম

রাজধানী ঢাকার সায়দাবাদ, গাবতলী এবং মহাখালী বাস টার্মিনাল সহ বেশকিছু স্থান হতে ঢাকা টু চট্টগ্রাম রুটে বিভিন্ন পরিবহণের এসি, নন-এসি বাস চলাচল করে। বাসে করে ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম যেতে ৪ থেকে ৫ ঘন্টা সময় লাগে।

বাসের ধরণভাড়া
নন এসি বাস৪৮০ টাকা
এসি বাস৮০০ – ১৩০০ টাকা

ঢাকা হতে চট্টগ্রামগামী এসি, নন-এসি বাসের মধ্যে আছে দেশ ট্রাভেলস (01705- 430566), তুবা লাইন (01876-005687), সোহাগ পরিবহণ (01926-699367), গ্রীন লাইন (0447-8660011), এনা (01760-737650), ইউনিক (01963-622236), শ্যামলী পরিবহন (02-7541336, 02-7541336), ইয়ার ৭১ (01917-078807), টি আর ট্রভেলস (02-8031189), ঈগল পরিবহন (01793-328045), হানিফ (01713-402673), ইকোনো (01992-017915), রয়েল কোচ (01872-723236), সেইন্টমার্টিন পরিবহন (01762-691341) এবং এস আলাম সার্ভিস (02-9002702)।

ঢাকা হতে ট্রেনে চট্টগ্রাম

ঢাকা থেকে ট্রেনে চট্টগ্রাম যেতে চাইলে কমলাপুর কিংবা বিমানবন্দর রেলষ্টেশন হতে আন্তঃনগর সোনার বাংলা এক্সপ্রেস, সুবর্ন এক্সপ্রেস, তূর্ণা এক্সপ্রেস, মহানগর প্রভাতী এবং মহানগর গোধূলী ট্রেনে যাত্রা করতে পারেন। এই আন্তঃনগর ট্রেনগুলো এছাড়াও ঢাকা হতে চট্টগ্রামগামী বেশকিছু মেইল এবং এক্সপ্রেস ট্রেন রয়েছে।

ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম ট্রেনের সময়সূচী

ট্রেনের নামছাড়ার সময়পৌছায়সাপ্তাহিক বন্ধ
সোনার বাংলাসকাল ৭ঃ০০দুপুর ১২ঃ২০বুধবার
মহানগর প্রভাতীসকাল ৭ঃ৪৫দুপুর ১ঃ৫০
সুবর্ণা এক্সপ্রেসবিকেল ৩ঃ০০রাত ৮ঃ১০সোমবার
মহানগর এক্সপ্রেসরাত ৯ঃ০০ভোর ৪ঃ০০রবিবার
তুর্ণা এক্সপ্রেসরাত ১১ঃ৩০সকাল ৬ঃ২০
চট্টলা এক্সপ্রেসদুপুর ১ঃ০০রাত ৮ঃ৫০মঙ্গলবার

শ্রেণীভেদে ঢাকা টু চট্টগ্রাম আন্তঃনগর ট্রেনের টিকেট মূল্য

ক্লাসভাড়া
শোভন২৮৫ টাকা
শোভন চেয়ার৩৪৫ টাকা
স্নিগ্ধা৬৫৬ টাকা
১ম শ্রেণীর চেয়ার৪৬০ টাকা
১ম শ্রেণীর বাথ৬৮৫ টাকা
এসি সিট৭৮৮ টাকা
এই বাথ১,১৭৯ টাকা

ট্রেন সম্পর্কিত তথ্যের জন্য জানতে যোগাযোগ
কমলাপুর রেলওয়ে ষ্টেশন
ফোন: ০২-৯৩৫৮৬৩৪, ৮৩১৫৮৫৭, ৯৩৩১৮২২
মোবাইল: ০১৭১১-৬৯১৬১২
ওয়েবসাইট: www.railway.gov.bd

ঢাকা থেকে বিমানে চট্টগ্রাম

ঢাকার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স, নভোএয়ার, রিজেন্ট এয়ারওয়েজ এবং ইউ এস বাংলা এয়ারলাইন্স সরাসরি ঢাকা টু চট্টগ্রাম রুটে সপ্তাহে ২১ থেকে ৩০ টি ফ্লাইট পরিচালনা করে। বিমানে চড়ে চট্টগ্রাম পৌঁছাতে ৪৫ মিনিট সময় লাগে। সকল এয়ারলাইন্সের প্রতিদিনের ফ্লাইট টাইম ধারাবাহিকভাবে একই থাকলেও বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের চট্টগ্রামগামী ফ্লাইটের সময় দিনভেদে পরিবর্তিত হয়।

ঢাকা টু চট্টগ্রাম বিমান টিকেটের মূল্য

বিমান সংস্থা সর্বনিন্ম ভাড়াসর্বোচ্চ ভাড়া
বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স ৩,০০০ টাকা ৮,০০০ টাকা
নভোএয়ার ২,৫০০ টাকা ৭,৮০০ টাকা
ইউ এস বাংলা এয়ারলাইন্স ২,৫০০ টাকা ৮,৭০০ টাকা
রিজেন্ট এয়ারওয়েজ ২,৫০০ টাকা ৯,২০০ টাকা

বিমান ভাড়া সব সময় ভ্রমণের তারিখ অনুযায়ী পরিবর্তিত হয়। ভ্রমণ তারিখের নূন্যতম মাসখানেক আগে বিমানের টিকেট কাটলে সাধারণত ভাড়া কিছুটা কমে। আবার ভ্রমণের তারিখের খুব কাছাকাছি সময়ে টিকেট কাটলে অনেকক্ষেত্রে টিকেটের স্বাভাবিক মূল্যের চেয়ে দ্বিগুণ বা তিনগুণ অর্থ ব্যয় করতে হয়।

প্রত্যেক ইকোনমি ক্লাসের যাত্রী ২০ কেজি পরিমাণ চেক কৃত এবং ৭ কেজি কেবিন লাগেজ হিসাবে মালামাল বহন করতে পারবেন। আর বিজনেস ক্লাসের যাত্রীগণ বহন করতে পারবেন ৩০ কেজি এবং ৭ কেজি মালামাল। নির্ধারিত পরিমাণের চাইতে বেশী মালামাল পরিবহন করতে চাইলে সংশ্লিষ্ট এয়ারলাইন্সের নিয়মানুসারে অতিরিক্ত ফি প্রদান করতে হবে।

ফিচার ইমেজ : শামছুল আলম খান মুরাদ

শেয়ার করুন সবার সাথে

ভ্রমণ গাইড টিম সব সময় চেষ্টা করছে আপনাদের কাছে হালনাগাদ তথ্য উপস্থাপন করতে। যদি কোন তথ্যগত ভুল কিংবা স্থান সম্পর্কে আপনার কোন পরামর্শ থাকে মন্তব্যের ঘরে জানান অথবা আমাদের সাথে যোগাযোগ পাতায় যোগাযোগ করুন।
দৃষ্টি আকর্ষণ : যে কোন পর্যটন স্থান আমাদের সম্পদ, আমাদের দেশের সম্পদ। এইসব স্থানের প্রাকৃতিক কিংবা সৌন্দর্য্যের জন্যে ক্ষতিকর এমন কিছু করা থেকে বিরত থাকুন, অন্যদেরকেও উৎসাহিত করুন। দেশ আমাদের, দেশের সকল কিছুর প্রতি যত্নবান হবার দায়িত্বও আমাদের।
সতর্কতাঃ হোটেল, রিসোর্ট, যানবাহন ভাড়া ও অন্যান্য খরচ সময়ের সাথে পরিবর্তন হয় তাই ভ্রমণ গাইডে প্রকাশিত তথ্য বর্তমানের সাথে মিল না থাকতে পারে। তাই অনুগ্রহ করে আপনি কোথায় ভ্রমণে যাওয়ার আগে বর্তমান ভাড়া ও খরচের তথ্য জেনে পরিকল্পনা করবেন। এছাড়া আপনাদের সুবিধার জন্যে বিভিন্ন মাধ্যম থেকে হোটেল, রিসোর্ট, যানবাহন ও নানা রকম যোগাযোগ এর মোবাইল নাম্বার দেওয়া হয়। এসব নাম্বারে কোনরূপ আর্থিক লেনদেনের আগে যাচাই করার অনুরোধ করা হলো। কোন আর্থিক ক্ষতি বা কোন প্রকার সমস্যা হলে তার জন্যে ভ্রমণ গাইড দায়ী থাকবে না।